পুলিশের ফাঁদে ধরা পড়ল দিল্লির ‘সিরিয়াল কিলার’ ডাক্তার! মাথায় ৫০+ খুনের মামলা

পুলিশের ফাঁদে ধরা পড়ল দিল্লির ‘সিরিয়াল কিলার’ ডাক্তার! মাথায় ৫০+ খুনের মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদন, দু বছর ধরে এক সিরিয়াল কিলারের খোঁজে উঠে পড়ে লেগেছিল পুলিশ। দ্বিতীয়বার পুলিশের জালে সে ধরা পড়ল। দু বছরে ৫০ টির বেশি খুন। ২০০২ – ২০০৪ – এই দু’বছর একের পর এক খুন, পুলিশ বুঝতে পারলেও খুনিকে ধরতে পারছিল না। তারপর হঠাৎ সে ফেরার হয়ে যায়। কখনও তার শিকার ট্রাকচালক, কখনও ট্যাক্সি ড্রাইভার, কখনও আবার অন্য কেউ। দিল্লির নির্জন রাস্তা হয়ে ওঠে আতঙ্কের এক নাম। তত দিনে ওই সিরিয়াল কিলারের অপরাধ দিল্লি, শহরতলি ছাড়িয়ে পার্শ্ববর্তী রাজ্যগুলিতেও ডানা মেলেছে।

শেষে জানা যায়, খুনি একজন আয়ুর্বেদ চিকিত্‍‌সক। দেবেন্দ্র শর্মা, বয়স ৬২। BAMS ডিগ্রি রয়েছে তার। আর সেই ডিগ্রির পেছনেই লুকিয়েছে সে খুনের চেহারা। লাগাতার ছ-মাসের চেষ্টায় দিল্লির বাপরোলা এলাকা থেকে ওই খুনে চিকিত্‍‌সককে দ্বিতীয় বার গ্রেফতারে সক্ষম হয়েছে দিল্লি পুলিশের অপরাধ দমন শাখা। প্রথমবার উত্তরপ্রদেশের আলিগঢ় জেলার পুরেনি গ্রাম থেকে তাকে গ্রেফতার করেছিল পুলিশ। কিন্তু, একটি খুনের মামলায় প্যারোলে ছাড়া পেয়ে ছ-মাসের জন্য গায়েব হয়ে যায়।

৫০ টি খুনের অভিযোগ এই আয়ুর্বেদ ডাক্তারের উপর থাকলেও পুলিশের দাবি, দিল্লি, উত্তরপ্রদেশ, হরিয়ানা ও রাজস্থান মিলিয়ে এই সংখ্যাটা ১০০-র কম নয়। খুনি নিজের মুখে স্বীকার করে, ৫০টি খুনের চক্রী।

Leave a Comment